বালিয়াকান্দিতে মামলা পরিচালনার অজুহাতে ওয়াকফ এস্টেটের সম্পত্তি বিক্রির অভিযোগ - Bangla News 24 Online

BANGLA NEWS 24 ONLINE বাংলা নিউজ ২৪ অনলাইন। Bangla Newspaper বাংলা নিউজ পেপার - BD News 24, BD News Today and Banlga News Today ||

Breaking

Home Top Ad

Wednesday, June 10, 2020

বালিয়াকান্দিতে মামলা পরিচালনার অজুহাতে ওয়াকফ এস্টেটের সম্পত্তি বিক্রির অভিযোগ

মামলা পরিচালনা, রাজস্ব পরিশোধ, রেকর্ড সংশোধনের অজুহাতে রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে হাজী আছিরুদ্দিন মৃধা ওয়াকফ এস্টেটের মোয়াতাল্লি আব্দুর রহমানের বিরুদ্ধে জমি বিক্রির অভিযোগ উঠেছে ।

স্টাফ রিপোর্টার ॥ মামলা পরিচালনা, রাজস্ব পরিশোধ, রেকর্ড সংশোধনের অজুহাতে রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে হাজী আছিরুদ্দিন মৃধা ওয়াকফ এস্টেটের মোয়াতাল্লি আব্দুর রহমানের বিরুদ্ধে জমি বিক্রির অভিযোগ উঠেছে ।

দলিত সুত্রে জানাগেছে, বালিয়াকান্দি উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের ৯০ নং খালকুলা মৌজার হাজী আছিরুদ্দিন মৃধা ওয়াকফ এস্টেটের মোতয়াল্লী ও রাজবাড়ী সদর উপজেলার রায়নগর গ্রামের সাদেক আলীর ছেলে আব্দুর রহমান ৯০/২০ ও ৯১/২০ নং দলিলে বালিয়াকান্দি সাব-রেজিষ্ট্রি অফিসের মাধ্যমে ১.৭০ একর জমি বিক্রি করেছেন। ৯০/২০ নং দলিলের গ্রহিতা খালকুলা গ্রামের হাজী ইন্তাজ আলীর ছেলে মোঃ আলী মুনছুর খান ১.০৩ একর ও ৯১/২০ নং দলিলে গ্রহিতা শাহাজ উদ্দিন মোল্যার ছেলে মোঃ কাসেম মোল্যা .৬৭ একর। .

৬৭ একর জমিতে ১০ লক্ষ ৪৬ হাজার টাকা ও ১.০৩ একর জমিতে ১৬ লক্ষ ৭ হাজার টাকা দেখানো হয়েছে। ২০১৯ সালের ১১ নভেম্বর তারিখে ১৬.০২.০০০০.০৩২.৩১.০০১.৯১.১১৫৩ নং স্মারকের আদেশের বলে ক্ষমতাপ্রাপ্ত হয়ে ওয়াকফ এস্টেটের খাজনা পরিশোধ, সম্পত্তি রেকর্ড সংশোধন, বেদখল সম্পত্তি উদ্ধার, ওয়াকফ সম্পত্তির মামলা-মোকদ্দমা পরিচালনার ব্যয়ের জন্য স্থানীয় দৈনিক ও জাতীয় পত্রিকার শর্ত সমূহ দরপত্র বিক্রয়ের ঘোষনা দেওয়া হয়। সে অনুযায়ী সর্বোচ্চ দরদাতা হিসেবে বিক্রি হয়।

জমির সত্বাধিকারী দাবীদার হোসেন আলীর পরিবারের পক্ষে সেলিম রেজা বলেন, আব্দুর রহমান ওই জমির কেউই নয়। ওই জমির সত্বাধিকারী হোসেন আলীর পরিবার। এ পরিবার যদি কখনো অভাব, অনটনে পড়ে, তবে ওই পরিবারের আবেদনের প্রেক্ষিতে ১৩টি মন্ত্রণালয়ের তদন্ত রিপোর্টের পর তাদের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ব্যবস্থা নেবে।

হাজী আছিরুদ্দিন মৃধা ওয়াকফ সম্পত্তির মোয়াতাল্লী আব্দুর রহমান বলেন, ক্ষমতাপ্রাপ্ত হয়ে ওয়াকফ এস্টেটের খাজনা পরিশোধ, সম্পত্তি রেকর্ড সংশোধন, বেদখল সম্পত্তি উদ্ধার, ওয়াকফ সম্পত্তির মামলা-মোকদ্দমা পরিচালনার ব্যয়ের জন্য ১.৭০ একর জমি ২৬ লক্ষ টাকায় বিক্রি করা হয়েছে।

রাজবাড়ী জজ কোর্টের সিনিয়র আইনজীবি ও আইনজীবি সমিতির সাবেক সাধারন সম্পাদক এ্যাডভোকেট এটিএম মোস্তফা বলেন, এ জমি কোন ক্রমেই হস্তান্তর যোগ্য নহে। যদি কেহ হস্তান্তর করে তা সম্পুর্ণ অবৈধ, যাহা ওয়াকফ দলিলেই উল্লেখ রয়েছে।

No comments:

Post a Comment